বিজ্ঞাপন

এ সময় অন্যান্যের মধ্যে বক্তৃতা করেন হেমট্রামিক সিটির মেয়র ক্যারন মায়েস্কি, বাংলাদেশি বংশোদ্ভুত সিটি কাউন্সিলম্যান মোহাম্মদ হাসান, বিএডিসির ভাইস প্রেসিডেন্ট সালমা সুলতানা।

গণমাধ্যমকর্মীদের মধ্যে বক্তৃতা করেন সুপ্রভাত মেশিগানের সম্পাদক চিম্ময় আচার্য্য, বাংলা সংবাদ সম্পাদক ইকবাল ফেরদৌস, সাংবাদিক মোস্তফা কামাল, শফিকুর রহমান, তোফায়েল রেজা, আশিকুর রহমান, ফারজানা চৌধুরী, রফিকুল হাসান চৌধুরী, জুয়েল খান, সাহেল আহমেদ, কামরুজ্জামান, হেমট্রামিক সিটির কাউন্সিলর প্রার্থী আরমানি আসাদ,কোভি লন, কমিউনিটি অ্যাক্টিভিস নাজেল হুদা, কাওছার দেওয়ান, জাকির আহমেদ, আরিফ আরমান, ফ্রিল্যান্সার মিল্টন বড়ুয়া।

বক্তারা বলেন, রোজিনার ওপর হামলার অর্থ বাংলাদেশের সাংবাদিকতার ওপর হামলা। যারা সাংবাদিক রোজিনাকে হেনস্তা করেছে, তাদের বিচার করতে হবে। বাংলাদেশের প্রত্যেকটি সাংবাদিক নির্যাতনের ঘটনায় দোষীদের সর্বোচ্চ শাস্তির দাবি জানান তারা।

যুক্তরাষ্ট্র থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন