default-image

যুক্তরাষ্ট্রের শিক্ষার্থীদের ঋণ পরিশোধের মেয়াদ আরও এক মাস বাড়ানো হয়েছে। করোনা মহামারির কারণে বিপর্যস্ত অর্থনৈতিক বাস্তবতায় শিক্ষার্থীদের ফেডারেল শিক্ষাঋণের কিস্তি পরিশোধের মেয়াদ ডিসেম্বর পর্যন্ত বর্ধিত করা হয়েছিল।

মার্কিন শিক্ষামন্ত্রী বেটসি ডেভোস ৪ ডিসেম্বর বলেন, শিক্ষাঋণের কিস্তি পরিশোধের মেয়াদ আগামী ৩১ জানুয়ারি পর্যন্ত বর্ধিত করা হয়েছে। ঋণ গ্রহণ করা শিক্ষার্থীরা প্রয়োজন মনে করলে কোনো মাশুল ছাড়াই তাদের কিস্তি পরিশোধ এই সময় পর্যন্ত স্থগিত রাখতে পারবে।

শিক্ষামন্ত্রী বেটসি ডেভোস শিক্ষাঋণ পরিশোধের সময়সীমা বৃদ্ধির ঘোষণা দিয়ে বলেন, করোনা মহামারির ফলে কর্মহীন মানুষের সংখ্যা বেড়েছে। অর্থনৈতিক এই সংকটের সময় ঋণের কিস্তি পরিশোধের ওপর স্থগিতাদেশ ভুক্তভোগীদের কাজে লাগবে। তিনি আশা প্রকাশ করে বলেন, এর মধ্যে কংগ্রেস শিক্ষাঋণ নিয়ে নিশ্চয় কোনো আইন পাস করবে।

যুক্তরাষ্ট্র কংগ্রেসে আসছে সপ্তাহেই নতুন নাগরিক সহযোগিতা আইন পাস করা হবে বলে স্পিকার ন্যান্সি পেলোসি জানিয়েছেন। নতুন প্রণোদনা প্যাকেজে শিক্ষাঋণের বিষয়টিও থাকবে বলে জানা গেছে।

যুক্তরাষ্ট্রে প্রায় ৪ কোটি ২০ লাখ মানুষের শিক্ষাঋণ রয়েছে। ঋণ গ্রহীতাকে মাসে গড়ে ৪০০ ডলার করে ঋণের কিস্তি দিতে হয়। কিস্তি দিতে ব্যর্থ হলে ঋণগ্রহীতা থেকে ফেডারেল কর্তৃপক্ষ দ্রুত কিস্তি আদায়ের উদ্যোগ গ্রহণ করে থাকে।

বিজ্ঞাপন
যুক্তরাষ্ট্রে প্রায় ৪ কোটি ২০ লাখ মানুষের শিক্ষাঋণ রয়েছে। ঋণ গ্রহীতাকে মাসে গড়ে ৪০০ ডলার করে ঋণের কিস্তি দিতে হয়

করোনা মহামারির কারণে এমন আদায়ের উদ্যোগও আগামী বছর বন্ধ রাখা হবে। এ সময়ে শিক্ষাঋণের জন্য কোনো তল্লাশি বা কর্মজীবীদের মজুরি থেকে ঋণের কিস্তি কেটে নেওয়ার প্রক্রিয়া স্থগিত রাখার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

পিউ রিসার্চ সেন্টারের দেওয়া তথ্য মতে, যুক্তরাষ্ট্রের ৯০ শতাংশ শিক্ষাঋণ গ্রহীতা করোনা মহামারি শুরু হওয়ার পর থেকে তাদের শিক্ষাঋণের কিস্তি পরিশোধ স্থগিত রেখেছে। ৫৮ শতাংশ ঋণ গ্রহীতা জানিয়েছে, বর্তমান অবস্থা চলতে থাকলে তাদের পক্ষে ঋণের কিস্তি পরিশোধ করা দুরূহ হয়ে উঠবে।

যুক্তরাষ্ট্রের উদারনৈতিক রাজনৈতিক মহল থেকে শিক্ষাঋণ সম্পূর্ণ মওকুফ করার দাবি জানানো হচ্ছে। কোনো কোনো আইন প্রণেতা ঋণের ওপর সুদ মওকুফ করে শিক্ষাঋণ আদায়ের পক্ষে। বাইডেন সরকার ক্ষমতা গ্রহণের পর কংগ্রেস এ নিয়ে উদ্যোগী হবে এবং এ দেশে শিক্ষাঋণের সংস্কার করা হবে বলে অনেকে আশা করছেন।

মন্তব্য করুন