default-image

যুক্তরাষ্ট্রের টেক্সাস অঙ্গরাজ্যে আসন্ন মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে ডেমোক্রেটিক দলের প্রার্থী জো বাইডেনের নির্বাচনী প্রচার গাড়িতে প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের সমর্থকদের বাধার ঘটনা তদন্ত করছে কেন্দ্রীয় তদন্ত সংস্থা (এফবিআই)।

সিএনএন-এর প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ১ নভেম্বর এফবিআইয়ের মুখপাত্র মিশেল লি এই তথ্য জানিয়েছেন। তিনি বলেন, ওই ঘটনায় সান আন্তোনিও এফবিআই সচেতন আছে। ঘটনার তদন্ত শুরু হয়েছে।

নাম প্রকাশ না করার শর্তে বাইডেন শিবিরের একজন কর্মকর্তার বরাত দিয়ে প্রতিবেদনে বলা হয়, গত ৩০ অক্টোবর টেক্সাসে সমর্থকদের আগাম ভোটের আহ্বান জানাতে সান আন্তোনিও থেকে অস্টিনের উদ্দেশ্যে যাচ্ছিল বাইডেন শিবিরের গাড়ি। এ সময় ‘ট্রাম্প ২০২০’ লেখা পতাকা হাতে ট্রাম্পের সমর্থকেরা বাইডেনের প্রচার গাড়ি ঘিরে রাখেন। তাঁরা গাড়ির গতি ঘণ্টায় ৩৫ কিলোমিটার থেকে ২০ কিলোমিটারে নামিয়ে এনেছিলেন। রাস্তার মাঝে প্রচার গাড়ি থামিয়ে দেওয়ার চেষ্টায় প্রায় শতাধিক গাড়ি নিয়ে ঘিরে ধরেছিলেন তাঁরা। তবে তাঁরা কাউকে আঘাত করেননি।

বিজ্ঞাপন

প্রতিবেদনে বলা হয়, ওই প্রচার গাড়িতে ডেমোক্রেটিক দল থেকে প্রেসিডেন্ট প্রার্থী জো বাইডেন ও ভাইস প্রেসিডেন্ট প্রার্থী কমলা হ্যারিস ছিলেন না। তবে ওই গাড়িতে রিপাবলিকানদের চ্যালেঞ্জ করা সাবেক রাজ্য সিনেটর ওয়েন্ডি ডেভিস উপস্থিত ছিলেন। এ বিষয়ে কোনো মন্তব্য করতে রাজি হননি ডেভিস।

প্রতিবেদনে আরও বলা হয়েছে, ঘটনার পর বাইডেনের প্রচার গাড়ির কর্মীরা ৯১১ নম্বরে ফোন করলে স্থানীয় আইন প্রয়োগকারী সংস্থা তাঁদের গন্তব্যে পৌঁছাতে সহায়তা করে।

এ ঘটনার ট্রাম্প একটি ভিডিও টুইট করে বলেছেন, তিনি টেক্সাসকে ভালোবাসেন। তিনি দাবি করেন, শনি ও রোববার তাঁর সমর্থকেরা বাইডেনের প্রচার গাড়িকে ‘রক্ষা করেছেন’।

টেক্সাসে ১ নভেম্বর সন্ধ্যায় সাংবাদিকদের বলেন, ‘এর আগে আমরা কখনো এমন পরিস্থিতির মুখোমুখি হইনি।’

মন্তব্য পড়ুন 0