default-image

যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে পেনসিলভানিয়া অঙ্গরাজ্যেও রিপাবলিকান প্রার্থী ডোনাল্ড ট্রাম্পকে পেছনে ফেলে এগিয়ে গেলেন ডেমোক্র্যাট জো বাইডেন। এই অঙ্গরাজ্যে হেরে গেলে ট্রাম্পের হোয়াইট হাউসে থাকার স্বপ্ন শেষ হয়ে যাবে।


নিউইয়র্ক টাইমস ও সিএনএনের সর্বশেষ তথ্য অনুযায়ী, বাইডেন প্রতিদ্বন্দ্বী ট্রাম্পের চেয়ে ৫ হাজার ৫৮৭ ভোটে এগিয়ে গেছেন।


যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের ভোটগ্রহণ হয়েছে ৩ নভেম্বর। এখনো বলা যাচ্ছে না, কে জিতছেন—ট্রাম্প নাকি বাইডেন। যেসব অঙ্গরাজ্যের ফলাফলের ওপর এই দুই প্রেসিডেন্ট পদপ্রার্থীর ভাগ্য ঝুলে আছে, তার মধ্যে পেনসিলভানিয়া অন্যতম। এখানে আছে ২০টি ইলেকটোরাল কলেজ ভোট। এবার এই অঙ্গরাজ্যেও ট্রাম্পকে টপকে গেলেন বাইডেন।

বিজ্ঞাপন

নিউইয়র্ক টাইমস জানাচ্ছে, পেনসিলভানিয়ায় শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত ৯৫ শতাংশ ভোট গণনা হয়েছে। এর মধ্যে ডেমোক্রেটিক পার্টি মনোনীত প্রেসিডেন্ট পদপ্রার্থী জো বাইডেন পেয়েছেন ৩২ লাখ ৯৫ হাজার ৩০৪টি ভোট। শতাংশের হিসাবে যা ৪৯ দশমিক ৪। এর বিপরীতে ডোনাল্ড ট্রাম্প পেয়েছেন ৩২ লাখ ৮৯ হাজার ৭১৭টি ভোট। শতাংশের হিসাবে এটি হলো ৪৯ দশমিক ৩ শতাংশ। অর্থাৎ বাইডেন ৫ হাজার ৫৮৭ ভোটে এগিয়ে আছেন। পেনসিলভানিয়ায় আছে ২০টি ইলেকটোরাল কলেজ ভোট।
অন্যদিকে জর্জিয়াতেও ট্রাম্পের তুলনায় এগিয়ে আছেন বাইডেন। জর্জিয়া অঙ্গরাজ্যকেও রিপাবলিকান ঘাঁটি বলা হয়ে থাকে। এখানে আছে ১৬টি ইলেকটোরাল কলেজ ভোট। ওয়াশিংটন পোস্টের সর্বশেষ তথ্য হলো, এখানে ৯৯ শতাংশ ভোট গণনা সম্পন্ন হয়েছে। এই অঙ্গরাজ্যে বাইডেন এক হাজার ৯৭ ভোটে এগিয়ে আছেন ট্রাম্পের চেয়ে। বাইডেন পেয়েছেন ২৪ লাখ ৪৯ হাজার ৫৮২ ভোট আর ট্রাম্প পেয়েছেন ২৪ লাখ ৪৮ হাজার ৪৮৫ ভোট। অথচ একটা সময়ে জর্জিয়ায় ট্রাম্প ৩ লাখের বেশি ভোটে এগিয়ে ছিলেন।

ফক্স নিউজসহ প্রভাবশালী কয়েকটি টেলিভিশন চ্যানেলের সর্বশেষ হিসাব অনুযায়ী, ট্রাম্প জিতেছেন ২১৪টি ইলেকটোরাল কলেজ ভোট, অন্যদিকে বাইডেনের এ সংখ্যা ২৬৪। তবে বেশ কিছু মার্কিন সংবাদমাধ্যম বলছে, বাইডেনের ২৫৩টি ইলেকটোরাল ভোট পাওয়া নিশ্চিত হয়েছে। এ ক্ষেত্রে অ্যারিজোনার ইলেকটোরাল ভোট বিবেচনায় নেওয়া হচ্ছে না। তবে পেনসিলভানিয়ায় জিতে ২০টি ইলেকটোরাল কলেজ ভোট ঝুলিতে ভরতে পারলে জো বাইডেন অনায়াসে ২৭০-এর ‘ম্যাজিক ফিগার’ ছাড়িয়ে যাবেন।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0