default-image

এক টুকরো নিঃশব্দের চাঁদ দেখি ঝুল বারান্দায়

আমি এখনো দাঁড়িয়ে আছি ঠায়।

পেট্রোলিয়াম জেলের মতো জ্যোৎস্না

যেখানে ছড়ায় সেখানেই লেপ্টে থাকে তার আবেশ!

এখন কার্নিশে ঝুলে পড়া পঙ্‌ক্তিগুলো এলোমেলো

বাতাসে দোল খায়। ওখানেও জ্যোৎস্না!

বিজ্ঞাপন

কাছেই হাতলবিহীন প্রাগৈতিহাসিক চেয়ারটা

খালি পড়ে আছে। দেখি; তার পরতে পরতেও চাঁদ!

কবি হওয়ার উদগ্র বাসনা নিয়ে মনে

সন্ন্যাসী হয়ে ছুটে যাই-চাঁদ নির্বাসনে।

হৃদয়ে কবিতার উত্তাল ঢেউ!

ক্লীবসময় সবকিছু যেমন অসাড় করে নেয়

আমার উচ্চারিত ইচ্ছের চাঁদ

বাইরের সবই তেমন নিথর করে দিয়েছে!

ওখানে কি উপমা, উৎপ্রেক্ষা, চিত্রকল্প,

শব্দ, ছন্দ আর কিছুই নেই?

বিজ্ঞাপন

নিঃশব্দের ওই চাঁদ আমাকে

রাতজাগা টিকটিকি করেই ছাড়বে দেখছি!

দেখি না ওই চাঁদ যায় কত দূর!

সাহিত্য থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন