default-image

মেক্সিকোর প্রেসিডেন্ট আন্দ্রেস ম্যানুয়েল লোপেজ ওব্রাদর করোনাভাইরাসে সংক্রমিত হয়েছেন। বার্তা সংস্থা রয়টার্সের প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়।

৬৭ বছর বয়সী প্রেসিডেন্ট আন্দ্রেস গতকাল রোববার নিজেই ঘোষণা দেন, তাঁর করোনা শনাক্ত হয়েছে।

টুইটারে প্রেসিডেন্ট আন্দ্রেস বলেন, তাঁর করোনার হালকা উপসর্গ আছে। তিনি করোনার চিকিৎসা নিচ্ছেন। এ নিয়ে তিনি চিন্তিত নন। তিনি সব সময় আশাবাদী।

করোনা মোকাবিলা নিয়ে প্রেসিডেন্ট আন্দ্রেস নিজ দেশে সমালোচিত। মেক্সিকোতে করোনার সংক্রমণ বাড়ছে। বাড়ছে প্রাণহানিও। এমন প্রেক্ষাপটে দেশটির খোদ প্রেসিডেন্টই করোনায় সংক্রমিত হলেন।

গতকাল দেশটিতে নতুন করে ১০ হাজার ৮৭২ জন সংক্রমিত হয়েছেন। মারা গেছেন ৫৩০ জন। এ নিয়ে দেশটিতে মোট সংক্রমিত মানুষের সংখ্যা দাঁড়াল ১৭ লাখ ৬৩ হাজার ২১৯। মারা গেছেন ১ লাখ ৪৯ হাজার ৬১৪ জন।

বিজ্ঞাপন

প্রেসিডেন্ট আন্দ্রেস জানিয়েছেন, করোনায় সংক্রমিত হওয়া সত্ত্বেও তিনি ঘরে বসেই তাঁর রাষ্ট্রীয় কাজ চালিয়ে যাবেন। এমনকি এ সময় তিনি রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের সঙ্গেও ফোনে কথা বলবেন।

আন্দ্রেস ও পুতিনের মধ্যে আজ সোমবার ফোনালাপ হবে। তাঁরা দ্বিপক্ষীয় বিষয় নিয়ে কথা বলবেন। এ ছাড়া রাশিয়ায় তৈরি ‘স্পুতনিক-৫’ টিকা পাওয়ার সম্ভাবনা নিয়ে পুতিনের সঙ্গে কথা বলবেন আন্দ্রেস।

প্রেসিডেন্ট আন্দ্রেস গত বছর জানিয়েছিলেন, কার্যকর প্রমাণিত হলে তাঁর দেশ রাশিয়ার ১২ মিলিয়ন ডোজ টিকা কেনার চেষ্টা করবে।

রাশিয়ার বাইরে প্রায় এক ডজন দেশ ‘স্পুতনিক-৫’ টিকা জরুরি ব্যবহারের অনুমোদন দিয়েছে।

গত আগস্টে রাশিয়া ‘স্পুতনিক-৫’ টিকার অনুমোদন দেয়। এটি বিশ্বে রাষ্ট্রীয় অনুমোদন পাওয়া প্রথম করোনার টিকা। রাশিয়ার ভাষ্য, তাদের উদ্ভাবিত ‘স্পুতনিক-৫’ টিকা কার্যকর ও নিরাপদ।

উত্তর আমেরিকা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন